টেকনাফ রোহিঙ্গা শিবিরে ত্রাণ বিতরণের দৃশ্য দেখলে হৃদয়টা কেঁদে উঠে, খাবারের জন্য একি হাহাকার !! (ভিডিও সহ)

0
26

মানুষ মানুষের জন্য। আর্তমানবতার সেবাই পরম ধর্ম। দুস্থ মানবতার পাশে দাঁড়াতে এবং তাদের মুখে হাসি ফোটানোর জন্য সদা প্রস্তুত বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নরত কিছু মেধাবীমুখ। পথশিশুদের ঈদের নতুন জামা, শিক্ষা উপকরণ বিতরণ, বন্যা দুর্গতদের মধ্যে ত্রাণ সহায়তার পর এবার রোহিঙ্গাদের জন্য ত্রাণ নিয়ে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে বাংলাদেশ কৃষি বিশ্যবিদ্যালয়ের (বাকৃবি) সেবামুখি সংগঠন হাসিমুখ পরিবারের সদস্যরা। তাদের লক্ষ্য একটিই আর তা হল দুঃখী মানুষের মুখে হাসি ফোটানোর চেষ্টা করা।

শুক্রবার টেকনফে বাংলাদেশে রোহিঙ্গা শরণার্থীদের সাহায্যর উদ্দেশ্যে হাসিমুখ পরিবারের ৩ জন সদস্য নয়াপাড়া ক্যাম্পে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেছে। তাদের ত্রাণ সামগ্রী ১৫টি শরণার্থী কাম্পে বিতরণ করা হয়েছে। ত্রাণ সামগ্রীর মধ্যে রয়েছে ৭৫০ কেজি চাল, ১৫০ কেজি ডাল, শিশুদের জন্য ৪৫০ কার্টুন মিল্ক এবং কিছু বোরখা। ডাল আর চাল দিয়ে একবেলা খিচুরিও রান্না করে তাদেরকে খাইয়েছে হাসিমুখ পরিবারের সদস্যরা।

স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন হাসিমুখের সভাপতি বিশ্ববিদ্যালয়ের ভেটেরিনারি অনুষদের প্রফেসর এবং সিভাসু এর সাবেক ভিসি প্রফেসর ড. আবু সালেহ মাহফুজুল বারি বলেন, হাসিমুখের সদস্যদের হিসাবে আমি সংগঠনের সবার তরফ হতে আবু সাঈদ সুমন, রুবাইত সন্ধান আর ইফতেকার নাঈমকে ধন্যবাদ জানাচছি। এই সেবা প্রদানের জন্য তোমাদের প্রতি আমরা কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি।

এর আগেও বিভিন্ন সময়ে আর্তমানবতার পাশে দাড়িয়েছে হাসিমুখ পরিবার। হাসিমুখ পরিবারের পক্ষ থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ের নৈশ বিদ্যালয়ের সুবিধা বঞ্চিতদের মাঝে খাবার, শিক্ষা উপকরণ, পথ শিশুদের মাঝে ঈদের পোশাক, বন্যাদুর্গতদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে। মানবতার সেবায় ভবিষ্যদের তাদের সেবামূলক কার্যক্রম অব্যাহত রাখার প্রয়াস ব্যক্ত করেছে হাসিমুখ পরিবার।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here