এক টুকরো সাবান এবং… যেকোনো ছিদ্র বন্ধ করতে

0
45

Pieces soap

বাড়ির কাঠের দরজা বেশ পুরনো হয়ে গেলে সেখানে ছোট বড় ছিদ্র কিংবা ফাটল দেখা দিতে পারে। সেসব বন্ধ করতে এখন আর রাজমিস্ত্রিকে ডাকতে হবে না। কেননা স্নানঘরে গিয়ে ব্যবহারের সাবানটি তুলে আনুন। এবার ছিদ্র বা ফাটলের জায়গায় ঘষুন। জায়গাটি পুরোপুরি বন্ধ না হওয়া পর্যন্ত ঘষতে থাকুন। এভাবে ঠিক করে ফেলতে পারবেন পুরনো যেকোনো আসবাবের ফাটলও।

মেঝে থেকে কাচের টুকরা তোলার ক্ষেত্রে

হাত থেকে কাচের গ্লাস পড়ে ভেঙে গেছে। বড় টুকরাগুলো তুলে ফেলেছেন মেঝে থেকে। কিন্তু ক্ষুদ্রাকৃতির টুকরাগুলো নিয়েই শঙ্কা। ভালোভাবে মেঝে পরিষ্কার না করা হলে ঘটতে পারে বিপত্তি। সেক্ষেত্রে যে জায়গায় ভেঙেছে গ্লাসটি, সেখানের মেঝেতে আলতো করে বুলাতে থাকুন সাবানের টুকরা। কাচের ছোট কণাগুলোও উঠে আসবে তাতে।

দরজার কব্জার শব্দ কমে যাবে

দরজার কব্জায় জং ধরে গেলে কিংবা বহু পুরনো হলে প্রতিবার দরজা খোলার সময় বাজে শব্দ হয়। সে শব্দ কমাতে কব্জায় পুরনো সাবান ঘষে নিন। দেখবেন শব্দ আর হবে না।

সৌরভ ছড়াবে সুগন্ধি সাবান

কোথাও ঘুরতে যাচ্ছেন বলে লাগেজ গুছিয়েছেন। সেখানে এক টুকরা সুগন্ধিযুক্ত সাবান রেখে দিতে পারেন। এতে লাগেজের ভেতরে সুঘ্রাণ বিরাজ করবে আবার ফ্রেশ থাকবে কাপড়চোপড়।

আটকে যাওয়া ড্রয়ার খুলতে

ওয়্যারড্রোব, টেবিল কিংবা ড্রয়ারযুক্ত যেকোনো আসবাবের এক বিড়ম্বনা হচ্ছে যখন তখন ড্রয়ার আটকে যাওয়া। এমন সমস্যার সম্মুখীন হবেন না, যদি ড্রয়ারের চাকা কিংবা কাঠে সাবান ঘষে রাখেন।

আটকে যাওয়া চেইন খুলতে

ব্যাগের চেইন, প্যান্টের জিপার ইত্যাদি আটকে গেলে বিড়ম্বনায় পড়তে হয় বটে। সেক্ষেত্রে চেইন বা জিপারে ঘষে নিতে পারেন সাবান। তাহলে সহজেই খুলে যাবে সেটি।

আটকে রাখতে সাহায্য করে সাবান

আলপিন, সুই, বোর্ডপিন, ক্লিপ, সেফটিপিন ইত্যাদি ছোট জিনিস হারিয়ে যায় সহজেই। আবার যেখানে সেখানে ফেলে রাখলে এগুলো বিপজ্জনকও বটে। এসব আটকে রাখতে ব্যবহার করতে পারেন সোপ বার।

তালা আটকে গেলে সাহায্য করবে সাবান

ঘরের মূল দরজায় তালা লাগিয়েছেন। কিন্তু যখনই তালা খুলতে গেলেন, তখনই বিপত্তি। কেননা তালা আটকে গেছে। আটকে যাওয়া তালা সহজেই খুলে ফেলতে চাবি ঢুকানোর ফুটোয় হালকাভাবে সাবান ঘষুন। এবার চাবি ঢুকিয়ে মোচড় দিলেই খুলে যাবে তালা।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here